শিক্ষার্থীদের পদচারণায় প্রাণবন্ত ফিরে পেলেন ঢাকা কলেজ ক্যাম্পাস

0

দীর্ঘ দেড় বছর পর আজ ১২ই সেপ্টেম্বর খুলে দেওয়া হয়েছে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। তাতে নতুন জীবনে পুরাতন সব অবসরের গ্লানি, একাকিত্বতা ও বিষন্নতার চাদর খুলে প্রাণের সাড়া জাগাতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের বন্ধ দরজা খুলে চিরচেনা বেঞ্চে বসে আড্ডায় বসতে ছুটে এসেছে সকল শিক্ষার্থী।

যেমন খুশি সব শিক্ষার্থীরা, তেমনি খুশি সকল অভিভাবকরাও। প্রাণবন্ত শহরের পথে পথে স্কুল-কলেজের পোশাকে হাটবে এসব শিক্ষার্থী, ছুটে বেড়াবে এ প্রান্ত থেকে ওপ্রান্তে। এতে শহর থেকে গ্রামের দৃশ্য পুনরায় বসন্তের নব ফুলের মত নতুন প্রাণে ফিরে আসবে।

ঢাকা কলেজ দেশের সুবিখ্যাত ও সুপ্রাচীন কলেজের একটি অন্যতম শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। আজ রোববার সকাল ৮ টা থেকে বিভিন্নমুখে কলেজ ইউনিফর্ম পড়ে, সকলে নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে শ্রেণিকক্ষে প্রবেশের জন্য ছুটে আসছে শিক্ষার্থীরা। ঢাকা কলেজের মূল ফটকে সাদা রং দিয়ে নির্দিষ্ট দূরত্বে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়েছে। মুখে মাস্ক ও শ্রেণিকক্ষে ঢোকার সময় হেন্ড-সেনিটাইজার ব্যবহার করে প্রবেশ করেছে। শুরুর দিকে সকল শিক্ষার্থীদের ফুল দিয়ে বরণ করে নিয়েছে ঢাকা কলেজ কর্তৃপক্ষ। ঢাকা কলেজ স্কাউটস সদস্যরা শিক্ষার্থীদের হাতে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সাত কলেজ সমন্বয়ক ও ঢাকা কলেজের অধ্যক্ষ আই কে সেলিমুল্লাহ খন্দকার।  শিক্ষার্থীদের পরিচালনা পর্ষদের দায়িত্বে থাকা ও ইংরেজি বিভাগের চেয়ারম্যান পুরঞ্জয় বিশ্বাস সহ ঢাকা কলেজ এর সকল অধ্যাপক ও শিক্ষকবৃন্দ। শিক্ষকবৃন্দ শিক্ষার্থীদের এমন আগম দেখে উল্লসিত।

পোষ্টটি লিখেছেন

নাঈমুর রহমান দুর্জয়
নাঈমুর রহমান দুর্জয়
নাঈমুর রহমান দুর্জয়, শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ওয়েবসাইট "এডু হেল্পস বিডি"র প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালক হিসেবে নিয়োজিত আছেন। ঢাবি অধিভুক্ত সাত কলেজ এর সরকারি বাঙলা কলেজে এমবিএ করতেছেন।