অনলাইনেই সকল বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষা নিবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

0

করোনা ভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে আগামী ১ জুলাই থেকে অনলাইনে সকল বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে ঢাবির ডিনস কমিটি। করোনা পরিস্থিতির কারণে গত বছরের ১৮ই মার্চ থেকে বন্ধ আছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষা কার্যক্রম। করোনা পরিস্থিতির মধ্যেও অনলাইনে ক্লাস ও দুটি সেমিস্টারের মিডটাম পরীক্ষা নেওয়া হলেও আটকে আছে সকল বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষা।

আরও পড়ুনঃ ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে বিএসসি ইন ফিজিওথেরাপি ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

আজ বুধবার বিকালে উপাচার্য মোঃ আক্তারুজ্জামান এর সভাপতিত্বে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিনস কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে ১ জুলাই থেকে অনলাইনে সকল পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হবে বলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সহ-উপাচার্য (শিক্ষা) এ এস এম মাকসুদ কামাল জানিয়েছেন।

সহ-উপাচার্য মাকসুদ কামাল বলেন, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে অনলাইনেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষা শুরু করা হবে। অনলাইনে পরীক্ষার গ্রহণযোগ্যতা ও পরীক্ষায় শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ কিভাবে নিশ্চিত করা যায় তা সুনির্দিষ্ট করতে অনুষদগুলোর ডিন এবং ইনস্টিটিউটগুলোর পরিচালকদের একটি কৌশলপত্র তৈরির দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ।

আরও পড়ুনঃ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষার অনলাইনে আবেদন শুরু

আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে এই কৌশল পত্র জমা দেওয়ার জন্য বলা হয়েছে এবং অনলাইন পরীক্ষার দায়িত্ব পালনের ব্যাপারে সকল শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে বলে জানান।  ডিনস কমিটির এই সকল সিদ্ধান্ত যথাশীঘ্রই বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক  কাউন্সিলের সভায় অনুমোদন করা হবে।

চূড়ান্ত সকল পরীক্ষা আটকে থাকায় ঢাবি শিক্ষার্থীরা  এর মধ্যে প্রায় এক বছর পিছিয়ে পড়েছে।  শিক্ষার্থীদের কর্মজীবনে প্রবেশ কিংবা ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা থমকে আছে পড়াশুনা শেষ করতে না পারার কারণে।  ঠিক এমন পরিস্থিতিতে অনলাইনের মাধ্যমে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল ঢাবি কর্তৃপক্ষ তবে অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়া হলেও আবাসিক হলগুলো বন্ধ থাকবে। 

 

পোষ্টটি লিখেছেন

এডু হেল্পস বিডি
এডু হেল্পস বিডি
এডু হেল্পস বিডি শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ওয়েবসাইট। যার মূলমন্ত্র হাতের মুঠোয় শিক্ষামূলক সকল খবর। এডু হেল্পস বিডি এর অন্যতম উদ্দেশ্য হলো বাংলাদেশের সকল শিক্ষার্থীদের মধ্যে একটা সুন্দর কমিউনিটি তৈরি করা। পাশাপাশি পড়াশোনার প্রয়োজনীয় তথ্য সেবা ও সঠিক দিকনির্দেশনা নিশ্চিত করা ও লেখাপড়া সংক্রান্ত বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করা।